২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং, ৯ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ৫ই জমাদিউস-সানি, ১৪৩৯ হিজরী

‘ভালোবাসো আপত্তি নাই, তবে হুঁশবিশ করে করো’

ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮, সময় ৭:১৯ অপরাহ্ণ

মঙ্গলবার রাজধানীর বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস এন্ড টেকনোলজির সমাবর্তন অনুষ্ঠানে বক্তব্য দিতে গিয়ে বিশ্ব ভালোবাসা দিবস এবং বসন্ত নিয়ে রসিকতা করেছেন রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ। গ্রাজুয়েটদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, তোমরা ভালোবাসা করো, আপত্তি নাই। তবে হুঁশবিশ করে করো।

president abdul hamid

বক্তব্যে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় স্বনির্ভর দেশ গড়তে তরুণদেরকে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ রুখে দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে রাষ্ট্রপতি বলেন, প্রযুক্তিতে দক্ষ হওয়া অপরিহার্য, কিন্তু প্রযুক্তি ব্যবহার করে যাতে কেউ বিভ্রান্তি ছড়াতে না পারে সেদিকে লক্ষ রাখতে হবে।

এছাড়া বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার মান নিশ্চিতের ওপর জোর দেন রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ।

এ সময় রাষ্ট্রপতি বলেন, আগামীকাল ভালোবাসা দিবস। আমি শুনেছি যে, দুই তিনদিন যাবত ফুলের দাম বেড়ে গেছে। আগামীকাল তো আরও দাম বেড়ে যাবে। তবে এতে আমাদের তেমন ক্ষতি হবে না, ক্ষতি তোমাদের হবে। কারণ, আমাদের ভালোবাসার দিন ফুরিয়ে গেছে।

সামনে উপস্থিত গ্র্যাজুয়েটদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, তোমরা ভালোবাসা করো, আপত্তি নাই। তবে হুশবিশ করে করো। সাবধানে করতে হবে। আমরা তো শুনতাম, ‘সখি ভালোবাসা কারে কয়’, এরপরে আছে, ‘ভালোবাসা মোরে ভিখারি করেছে’, আবার ‘আশা ছিলো ভালোবাসা ছিলো’ ভালোবাসা দিবসে এসব গান অনেকেই মনে মনে আওড়ান।

‘ভালোবাসার সুবিধাজনক স্থান হলো বিশ্ববিদ্যালয় উল্লেখ করে আবদুল হামিদ বলেন, আমি বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পাইনি, পড়ার সুযোগও পাইনি। সুতরাং ভালোবাসাবাসিও করতে পারিনি। কলেজে লেখাপড়া করেছি, ওখানে সুযোগ সুবিধা অনেক কম ছিলো। সুতরাং ভালোবাসার উপর কিছু থিসিস লিখলে ছেলে-মেয়েদের উপকার হবে।

তিনি বলেন, ‘ভালোবাসা ভালো কিন্তু ভালোবাসার নামে অভিনয় করা ভালো না, প্রতারণা করাও ভালো না। এ ব্যাপারে সাবধান থাকা উচিৎ।